দিনে পাঁচশ নারী পুঁজিবাজারে আসছে

পুঁজিবাজারের নারী বিনিয়োগকারীদের বিনিয়োগের এখনই উত্তম সময় বলে মন্তব্য করেছেন বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের (বিএসইসি) কমিশনার অধ্যাপক ড. শেখ শামসুদ্দিন আহমেদ। একই সঙ্গে বলেন, প্রতিদিন গড়ে পাঁচ শতাধিক নারী আসছে পুঁজিবাজারে।

মঙ্গলবার বিএসইসির অডিটোরিয়ামে বাংলাদেশ ইনস্টিটিউট অব ক্যাপিটাল মার্কেট (বিআইসিএম) আয়োজিত দেশের পুঁজিবাজারে নারী বিনিয়োগকারীদের প্রশিক্ষণ কর্মশালায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

পুঁজিবাজারে নারীদের অংশগ্রহন বাড়ছে জানিয়ে শেখ শামসুদ্দিন আহমেদ বলেন, পুঁজিবাজার ঊর্ধ্বমুখী থাকার পাশাপাশি প্রাইমারি মার্কেটে কিছু ভালো মানের কোম্পানির আইপিও থাকায় ফের পুঁজিবাজারে যুক্ত হচ্ছে নারীরা। পুঁজিবাজারে নারীদের সকল নিরাপত্তা দেওয়া হচ্ছে। ফলে প্রতিদিন গড়ে পাঁচ শতাধিক নারী পুঁজিবাজারের সঙ্গে যুক্ত হচ্ছেন।

প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত নারীরা কম আসছে জানিয়ে শেখ শামসুদ্দিন আহমেদ বলেন, পুঁজিবাজার বড় হচ্ছে। তবে পর্যাপ্ত প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত নারী বিনিয়োগকারী আসছেন না। প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত নারী বিনিয়োগকারী আসলে তাদের বিনিয়োগের ঝুঁকি অনেক কমে আসবে।

আরও বলেন, ২০১০ সালে ধসের পর পু্ঁজিবাজারে ছেড়ে চলে যান বিপুল সংখ্যক নারী। সাত লাখ থেকে কমে নারীর সংখ্যা চলে আসে পাঁচ লাখের নিচে। এরপর পুঁজিবাজারে নারীর অংশগ্রহণ সেভাবে লক্ষ্য করা যায়নি। তবে এখন নারীরা পুঁজিবাজারে অংশগ্রহণ করছে। দেশে নারী পুরুষের বৈষম্য দূর করে জিডিপিতে নারীদের অবদান বাড়ছে।

কর্মশালায় সভাপতিত্ব করেন বিআইসিএমের নির্বাহী প্রেসিডেন্ট মাহমুদা আক্তার। আলোচক হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বিএসইসির কমিশনার ড. রুমানা ইসলাম, মডার্ন সিকিউরিটিজের ব্যবস্থাপনা পরিচালক খুঁজিস্তা নূর-ই-নাহরীন, সিএপিএম এডভাইজরির ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও সিইও তানিয়া শারমিন, এনবিএল ক্যাপিটাল এন্ড ইক্যুইটি ম্যানেজমেন্টের ব্যবস্থাপনা পরিচালক এবং সিইও কামরুন নাহার। অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন বিআইসিএমের জনসংযোগ কর্মকর্তা খালেদা জেসমিন মিথিলা।

মন্তব্য করুন






আর্কাইভ