নাভানা ফার্মার আইপিও অনুমোদন

নাভানা ফার্মাসিউটিক্যালস;প্রাথমিক গণপ্রস্তাবের (আইপিও) মাধ্যমে ৭৫ কোটি টাকা উত্তোলনের অনুমোদন দিয়েছে। গতকাল বুধবার বাংলাদেশ সিকিউরিটি এক্সচেঞ্জ কমিশনের (বিএসইসি) ৮২৬তম সভায় আইপিওর বুক বিল্ডিং পদ্ধতিতে শেয়ার ছেড়ে বাজার থেকে টাকা উত্তোলনের জন্য অনুমোদন দেওয়া হয়।

কমিশনের চেয়ারম্যান অধ্যাপক শিবলী রুবাইয়াত উল-ইসলামের সভাপতিত্বে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়। সভা শেষে বিএসইসির নির্বাহী পরিচালক ও মুখপাত্র মোহাম্মদ রেজাউল করিম স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

জানা যায়,;সভায় নাভানা ফার্মাসিউটিক্যালসের;আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে ৭৫ কোটি টাকা বুক বিল্ডিং পদ্ধতিতে বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ এক্সচেঞ্জ কমিশন (পাবলিক ইস্যু) রুলস ২০১৫ অনুযায়ী আইপিওর মাধ্যমে উত্তোলন করার প্রস্তাব অনুমোদনের সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়। এই আইপিওর মাধ্যমে ৭৫ কোটি টাকা পুঁজি উত্তোলন করে কোম্পানিটি নতুন সাধারণ উৎপাদন ভবন নির্মাণ, নতুন ইউটিলিটি এবং ইঞ্জিনিয়ারিং ভবন নির্মাণ, সেফালোস্পোরিন ইউনিটের সংস্কার, আংশিক ঋণ পরিশোধ এবং ইস্যু ব্যবস্থাপনা খরচ খাতে ব্যয় করবে।

কোম্পানিটির ১ জুলাই, ২০২১ থেকে ৩১ মার্চ, ২০২২ পর্যন্ত সময়কালের (নয় মাস) আর্থিক বিবরণী অনুযায়ী, পুনঃমূল্যায়নসহ শেয়ার প্রতি নিট সম্পদ মূল্য (এনএভিপিএস) ৪৩ দশমিক ৫৩ টাকা, পুনঃমূল্যায়ন ছাড়া শেয়ার প্রতি নিট সম্পদ মূল্য ১৯ দশমিক শূন্য ২ টাকা, শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) ২ দশমিক ৩৯ টাকা এবং বিগত ৫ বছরের ভারিত গড় হারে শেয়ার প্রতি আয় ২ দশমিক ৫১৬ টাকা।

নাভানা ফার্মাসিউটিক্যালস;কাট অব প্রাইস থেকে থেকে ৩০ শতাংশ কমে সাধারণ বিনিয়োগকারীর নিকট শেয়ার ইস্যু করবে। উল্লেখ্য, পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্তির পূর্বে কোম্পানিটি কোনো প্রকার লভ্যাংশ ঘোষণা, অনুমোদন বা বিতরণ করতে পারবে না।

মন্তব্য করুন






আর্কাইভ